মেলবোর্নে ইতিহাস ভারতের, অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে বিরাট জয়

নিউজ ডিজিটাল : টেস্টের চতুর্থ দিনই যেন ম্যাচের ভাগ্য নির্ধারিত হয়ে গিয়েছিল।সূত্রের খবর ইতিহাস তৈরি থেকে মাত্র দুধাপ দূরে ছিল ভারত। এদিন খেলা শুরু হতেই এল প্রত্যাশিত জয়। যদিও বৃষ্টিই ছিল একমাত্র চিন্তার বিষয়। এবং হোম ফেভরিটদের মান বাঁচাতে সে হাজিরও হয়েছিল মাঠে। যার ফলে ম্যাচ শুরু হতেও খানিকটা দেরি হয়। তবে সফরকারী দলকে দমানো যায়নি। বুমরাহ-ইশান্ত জোড়া উইকেট তুলে নিতেই তেরঙ্গায় রঙিন হয়ে ওঠে ক্যাঙারুর দেশ। দ্বিতীয় ইনিংসে বুমরাহ ও জাদেজা তিনটি করে উইকেট তুলে নেন। ইশান্ত ও শামি দুটি করে উইকেট ঝুলিতে ভরেন। সব সমালোচনা, সব বিতর্ক, সব কটাক্ষের জবাব অজিবাহিনীকে ১৩৭ রানে হারিয়েই দিয়ে দিলেন বিরাটরা। আর সেই সঙ্গে চার টেস্টের সিরিজে ২-১-এ এগিয়ে গেল ভারত।নজির গড়ে আত্মবিশ্বাসী ক্যাপ্টেন কোহলি বলছেন,এই জয়ে একেবারেই অবাক হইনি। আমরা জানতামই জিতব। ভাল খেললে ভাল ফল তো হবেই। জয়ের আসল নায়ক যে ভারতীয় বোলাররাই, বোলারদের জন্যই এই জয়টা বেশি করে স্পেশ্যাল। তবে প্রথম ইনিংসে পূজারা, ময়ঙ্ক এবং কোহলি দুর্দান্ত ব্যাটিং না করলে অস্ট্রেলিয়াকে হারানো সহজ হত না। তাই দিনের শেষে বলা যেতেই পারে দলগত দক্ষতাতেই এল জয়। আর এই জয়ের মধ্যে দিয়েই অসামান্য ব্যাটসম্যানের পাশাপাশি নিজেকে যোগ্য অধিনায়ক হিসেবেও মেলে ধরলেন কোহলি। ১৩৭ রানের বিশাল ব্যবধানে জয় ভারতের। ৩৭ বছর পর মেলবোর্নে টেস্ট জিতল ভারত। একই সঙ্গে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে একই সিরিজে দুটি টেস্টে জয় পেল ভারত। পরের টেস্ট সিডনিতে। যেখানে ড্র করলেই সিরিজ জিতবে ভারত। তবে বিরাট কোহলিদের শরীরী ভাষাই বলে দিচ্ছে, ড্র নয়, শেষ টেস্ট জিতেই সেলিব্রেশন করতে চান তাঁরা।

Facebooktwittergoogle_plusredditpinterestlinkedinmail